বরিশালে সীমিত লকডাউনে প্রথম দিনের অবস্থা

News News

Desk

প্রকাশিত: ১১:৩২ অপরাহ্ণ, জুন ২৮, ২০২১

বাপ্পি মন্ডলঃ কোভিড-১৯ এর প্রভাব বেড়ে যাওয়ার কারনে ২৮ জুন থেকে কঠোর লকডাউনের ঘোষনা দেওয়া হলেও পরবর্তীতে সিধান্ত কিছুটা পরিবর্তন করে ২৮ জুন থেকে সীমিত লকডাউন এবং ৩০জুন থেকে কঠোর লকডাউন এর নির্দেশনা দেওয়া হয়। তারই ধারাবাহিকতায় আজ ২৮ জুন প্রথম দিনের সীমিত লকডাউন শান্তিপূর্ন ভাবে পালিত হয়

স্বাস্থ্যবিধি মেনে পর্যটন কেন্দ্র চালু রাখার দাবিতে মানববন্ধন

নগরিতে পায়ে চালিত রিক্সা ব্যাতিত অন্য যানবাহন চলাচল ছিলো নিষিদ্ধ। এরপরেও বিভিন্ন এলাকায় ঘুরে দেখা মেলে সীমিত সংখ্যক ব্যাটারি চালিত অটো ও মোটরসাইকেল।
নগরীর বহুমুখী সিটি মার্কেট, মহাসীন মার্কেট ছিলো তালা বদ্ধ।

ছবি- বিজয়ের বাংলাদেশ

 

গির্জামহল্লা, ফলপট্টি, কাটপট্টি,সদররোড, বাজাররোড এর দোকান গুলো সকাল ৯টা নাগাদ খোলার চেষ্টা করলেও প্রশাসন এর কঠোর নজরদারিতে সারা দিন দোকানগুলো বন্ধ রাখতে বাধ্য হয় দোকানিরা। এছাড়াও নগরীর রুপাতলী, নতুল্লাবাদ, চৌমাথা, বটতলা, বাংলাবাজার এলাকায় মুদি দোকান সীমিত আকারে খোনা থাকলেও অন্যান দোকান ছিলো বন্ধের তালিকায়। প্রশাসন এর কঠোর নজরদারি এরিয়ে দোকানের শাটার নামিয়ে বেচাকেনা চালায় সদর রোডের কিছু দোকানী। নগরীর মুক্তিযুদ্ধ পার্ক, প্লানেট পার্ক ছিলো বন্ধের তালিকায়।

কয়েকজন দোকানীর সাথে কথা বলে জানা যায়,, দীর্ঘ দিন লকডাউন থাকার জন্য তাদের ব্যাবসা এর বেহাল অবস্থা এমন সময় আবার লকডাউন তাদের জন্য অভিশাপ। সকাল থেকে প্রশাসন এর নজরদারিতে দোকান খুলতে পারছে না তারা।

সকাল ১১টা নাগাদ বরিশাল অশ্বিনী কুমার টাউনহল এর সামনে নির্বাহি ম্যাজিস্ট্রেট জনসচেতনতা মুলক পোস্টার ও মাক্স বিতরন করেন জনসাধারনের মাঝে। এ সময় তিনি বিভিন্ন দোকান ঘুরে জনসচেতনতা মূলক প্রচার চালায় ও দোকান গুলো ঘুরে তাদের বন্ধের নির্দেশ দেয়।

প্রশাসনিক কর্মকর্তাগন জানায় শান্তিপূর্ন ভাবে পালিত হচ্ছে প্রথম দিনের লকডাউন। এছাড়াও বরিশাল এর বিভিন্ন স্থানে তারা জনসচেতনতা মূলক প্রচার চালিয়ে যাচ্ছে। মানুষকে ভয় দেখিয়ে নয় বুঝিয়ে তারা বাড়িতে পাঠাচ্ছেন তারা।