সালথায় সহিংসতার ঘটনায় মামলা করেছে পুলিশ

News News

Desk

প্রকাশিত: ১২:০৩ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ৭, ২০২১

ফরিদপুরের সালথায় গত সোমবার রাতে হামলা, ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় মামলা করেছে পুলিশ। মামলার আসামি করা হয়েছে চার হাজার জনকে। 

মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) রাতে সালথা থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মিজানুর রহমান বাদী হয়ে মামলাটি করেন। এতে থানায় হামলা ও সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগ আনা হয়েছে। মামলায় ৮৮ জনের নাম উল্লেখ করা হয়েছে। অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে ৩ থেকে ৪ হাজার ব্যক্তিকে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন সালথা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আশিকুজ্জামান।

ছবি: সংগ্রহ

করোনার বিস্তার নিয়ন্ত্রণে সরকার ঘোষিত কঠোর বিধিনিষেধ কার্যকর করা নিয়ে এই সহিংসতার সূত্রপাত হয়। সোমবার সন্ধ্যা ৭টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত ফরিদপুরের সালথা থানা ও উপজেলা কমপ্লেক্স ঘেরাওসহ বিভিন্ন সরকারি স্থাপনায় ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করা হয়েছে। পুলিশের সঙ্গে স্থানীয়দের দফায়-দফায় সংঘর্ষ চলাকালে একজনের মৃত্যুর গুজব ছড়িয়ে পড়লে পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ আকার নেয়। পুলিশ রাবার বুলেট, কাঁদানে গ্যাসের শেল ও সাউন্ড গ্রেনেড ছুঁড়ে রাত ১২টার দিকে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় আহত এক মাদ্রাসা ছাত্রের মৃত্যু হয় মঙ্গলবার সকালে।

এই ঘটনার পর থেকে সালথায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় টহল দিচ্ছেন পুলিশ ও র‍্যাবের পাশাপাশি বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যরা।