কলাপাড়াকে জেলা করার দাবিতে মানববন্ধন

News News

Desk

প্রকাশিত: ৭:৫২ অপরাহ্ণ, মার্চ ৯, ২০২১
মোঃ সাইমুন ইসলাম, পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধিঃ

পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলাকে জেলা করার দাবিতে কলাপাড়া প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচি করা হয়েছে। মঙ্গলবার (৯ মার্চ) সকাল ১০টায় ‘কলাপাড়া জেলা চাই’ এই স্লোগান নিয়ে শত শত ব্যানারে এ মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়েছে।
মানববন্ধনে অংশ নিয়েছেন কলাপাড়া, রাঙাবালী, মহিপুর, আমতলী, তালতলীসহ বিভিন্ন মত ও শ্রেণি-পেশার সহস্রাধিক জনগণ। ‘কলাপাড়া জেলা চাই’ আন্দোলনকারীরা জানান, এ দেশের সমবায় আন্দোলনের শুরুর দিকের থানা (বর্তমান উপজেলা) এই কলাপাড়া।
এতে উপস্থিত ছিলেন- পটুয়াখালী ৪ আসনের সাংসদ সদস্য অধ্যক্ষ মহিব্বুর রহমান মহিব, কলাপাড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এস এম রাকিবুল আহসান, কলাপাড়া পৌরসভার মেয়র বিপুল চন্দ্র হাওলাদার, কুয়াকাটা পৌরসভার মেয়র আনোয়ার হাওলাদারসহ কলাপাড়া প্রেসক্লাব, কলাপাড়া রিপোর্টার্স ইউনিটি, কলাপাড়া রিপোর্টার্স ক্লাব, কলাপাড়া সাংবাদিক ক্লাব, কুয়াকাটা প্রেসক্লাব, মহিপুর প্রেসক্লাবসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন।বাংলাদেশের সর্ব দক্ষিণের জনপদ কলাপাড়ার সমবায়ীরা ব্রিটিশ আমলে এখানে গড়ে তোলে এশিয়ার বৃহত্তম বাষ্পচালিত চাল কল, তেল কল, ম্যাচ কারখানা, ছাপাখানা, পাবলিক হলসহ বিভিন্ন স্থাপনা। একই স্থান থেকে সূর্যোদয় ও সূর্যাস্ত উপভোগের জন্য পৃথিবীতে বিরল যে কটি সৈকত আছে, তার একটি কুয়াকাটা।
১৯০৬ সালে কলাপাড়া থানা গঠিত হয়। ১৯৬৯ সালের ১ জানুয়ারি এটি মহকুমায় (পরবর্তীকালে জেলা) পরিণত করার উদ্যোগ নেওয়া হলেও মুসলিম লীগ নেতা এমএনএ আবদুল আজিজ প্রভাব খাটিয়ে অনুন্নত বরগুনাকে মহকুমা ঘোষণা করা হয়। তারপর বিগত কয়েক দশক ধরে উপকূলবাসী কলাপাড়াকে জেলা হিসেবে প্রতিষ্ঠার দাবি জানিয়ে আসছে।
বর্তমানে এখানে আছে সরকারের ১০টি মেগা প্রকল্পের কাজ। যার অন্যতম পায়রা গভীর সমুদ্রবন্দর। একই সঙ্গে কাজ চলমান কয়লাভিত্তিক ১৩২০ মেগওয়াট পায়রা তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র। পায়রা বন্দরকে ঘিরে অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ার কার্যক্রমও এগিয়ে চলছে পুরোদমে। এসব কার্যক্রম ৫০ কিলোমিটার দূর থেকে পটুয়াখালী জেলার পক্ষে তদারকি করা কঠিন। তাই প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুত এসব প্রকল্পের কাজ দ্রুত এগিয়ে নিতে কলাপাড়া, রাঙ্গাবালী, তালতলী ও আমতলী উপজেলা এবং মহিপুর থানার মানুষ কলাপাড়া জেলার দাবিতে মানববন্ধন করে।