বিজিবির অভিযানে ২০২০ সালে ৭৩৭ কোটি ৯৩ লক্ষাধিক টাকার চোরাচালান ও মাদকদ্রব্য জব্দ

News News

Desk

প্রকাশিত: ২:২৯ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ৩, ২০২১

বিজিবি অভিযান চালিয়ে ২০২০ সালে ৭৩৭ কোটি ৯৩ লক্ষাধিক টাকার চোরাচালান ও মাদকদ্রব্য জব্দ করেছে। রোববার (৩ জানুয়ারি) বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরিফুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ২০২০ সালের জানুয়ারি হতে ডিসেম্বর পর্যন্ত দেশের সীমান্ত এলাকাসহ অন্যান্য স্থানে অভিযান চালিয়ে সর্বমোট ৭৩৭ কোটি ৯৩ লাখ ৬৯ হাজার টাকা মূল্যের বিভিন্ন প্রকারের চোরাচালান ও মাদকদ্রব্য জব্দ করতে সক্ষম হয়েছে।
জব্দকৃত মাদকের মধ্যে রয়েছে ১,০৮,৮৯,৮৪৯ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ৫,৩৫,৮৬৯ বোতল ফেনসিডিল, ১,১৫,৭৯৯ বোতল বিদেশি মদ, ৬,৩৩৯ লিটার বাংলা মদ, ১০,৪১৬ ক্যান বিয়ার, ১৩,৮৫৭ কেজি গাঁজা, ২২ কেজি ১৭ গ্রাম হেরোইন, ৪৬,৬২১টি উত্তেজক ইনজেকশন, ৬৪,১৬৯টি এ্যানেগ্রা/সেনেগ্রা ট্যাবলেট এবং ৩০,২৪,০০৯টি অন্যান্য ট্যাবলেট।
জব্দকৃত অন্যান্য চোরাচালান দ্রব্যের মধ্যে রয়েছে ৮৭ কেজি ৭৬৬ গ্রাম স্বর্ণ, ২১৬ কেজি ৭১৭ গ্রাম রুপা, ৩৩,৩৬৬টি শাড়ি, ৯,৪৪০টি থ্রিপিস/শার্টপিস, ১৪,৯৬৭টি তৈরি পোশাক, ২১,৪৮৭ মিটার থান কাপড়, ৯,৫০,৫৯৫ ঘনফুট কাঠ, ৩৮,২৯,৪৩০ কেজি চা পাতা এবং ৪১টি কষ্টিপাথরের মূর্তি।
একই সময়কালে উদ্ধারকৃত অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে ৩৩টি পিস্তল, ১টি রিভলবার, ৯০টি বন্দুক, ১০,৪৭৩টি সব প্রকার গোলাবারুদ, ৩৫টি ম্যাগাজিন, ২ কেজি ২০০ গ্রাম গান পাউডার এবং ২০টি ককটেল।
বিজিবির অভিযানে ২০২০ সালে মাদক পাচারসহ অন্যান্য চোরাচালানে জড়িত থাকার অভিযোগে ৩,৫৯৪ জনকে আটকের পর তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলেও উল্লেখ করা হয়েছে বিজ্ঞপ্তিতে।